শুক্রবার, ২১ জানুয়ারী ২০২২, ০২:০৭ পূর্বাহ্ন

কুষ্টিয়ায় শেখ কামাল স্টেডিয়ামের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধি
  • আপডেট টাইম : শুক্রবার ১৪ জানুয়ারী, ২০২২

কুষ্টিয়ায় ৪৪ কোটি টাকা ব্যয়ে আন্তর্জাতিক মানের কুষ্টিয়া শেখ কামাল স্টেডিয়ামের ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধন করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে কুষ্টিয়া স্টেডিয়াম মাঠে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল এমপি বেলুন ও কবুতর উড়িয়ে এবং আল্লাহ্‌র দরবারে দুই হাত তুলে দু’য়া – মুনাজাতের মধ্যে দিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে এর ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধন করেন।

এসময় আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক, কুষ্টিয়া সদর আসনের বারবার নির্বাচিত সংসদ সদস্য গন মানুষের প্রিয় নেতা মাহবুব উল আলম হানিফ, কুষ্টিয়া-১ দৌলতপুর আসনের সংসদ সদস্য আ. কা. ম. সরওয়ার জাহান বাদশাহ্, কুষ্টিয়া-৪ আসনের সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার সেলিম আলতাফ জর্জ, কুষ্টিয়ার মানবিক জেলা প্রশাসক মো. সাইদুল ইসলাম, কুষ্টিয়ার জনগণের আস্হার প্রতিক পুলিশ সুপার মোঃ খাইরুল আলম, জেলা পরিষদের জনপ্রিয় চেয়ারম্যান হাজী রবিউল ইসলাম, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান , সদর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাদা মনের মানুষ আতাউর রহমান আতা, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ সদর উদ্দিন খান, সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আজগর আলী, কুষ্টিয়া জেলা ক্রীড়া সংস্থা ও বিভাগীয় প্রধান মকবুল হোসেন লাবলু, জেলা আওয়ামী লীগের আমজাদ হোসেন রাজু, হাসু সরকার, এ্যাডঃ আক্তারুজ্জামান মাসুম, এ্যাডঃ অনুপ কুমার নন্দী, কুষ্টিয়া প্রেসক্লাব কেপিসি ও সাংবাদিক ইউনিয়ন কুষ্টিয়ার সাংবাদিক নেতা আলহাজ্ব রাশেদুল ইসলাম বিপ্লব, বিএফইউজে’র সহ-সভাপতি ও নারী নেত্রী কুষ্টিয়া কালেক্টরেট স্কুল এন্ড কলেজের সহকারী প্রধান শিক্ষক আফরোজা আক্তার ডিউ, মিরপুর উপজেলার পরিচিত মুখ চেয়ারম্যান কামারুল আরেফিন, কুষ্টিয়া সদর ইউপি নির্বাচনে বিজয়ী একমাত্র নৌকার মাঝি গোস্বামী দুর্গাপুর ইউনিয়নের নির্বাচিত চেয়ারম্যান লাল্টু রহমান, সদর কৃষক লীগের আহ্বায়ক সংগ্রামী জননেতা মোঃ নজরুল ইসলাম প্রধান, দৌলতপুর উপজেলা চেয়ারম্যান মামুন, সাক্কির এবং
আওয়াামী লীগের সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

পরে উপজেলা ভলিবল টুর্নামেন্টের ফাইনালে কুষ্টিয়া সদর চ্যাম্পিয়ন ও দৌলতপুর উপজেলা রানার্স আপ, বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন, পাঁচ জনকে আর্থিক চেক প্রদান এবং বিশিষ্ট ব্যক্তিদের সম্মাননা ক্রেস্ট প্রদান করেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল।

এসময় তার সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে বলেন, কুষ্টিয়ার ক্রীড়াঙ্গনের অবকাঠামো উন্নয়নে আরও সার্বিক সহায়তার আশ্বাস দেন। তিনি আরও বলেন, কুষ্টিয়া সাংস্কৃতিক জেলা এই জেলার মূল্য বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধের ইতিহাস। এই জেলার মানুষের প্রতি আমি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। ২০০৪ সালে যখন আমার বাবাকে শুক্রবার পবিত্র জুমাআর নামাজ আদায় শেষ করে বাড়িতে ফিরার সময় বিএনপি জামাত জোটের সন্ত্রাসীরা নির্মম ভাবে হত্যা করে। তার পর অনেক দিন শুধু আমার বাবাকে ভালোবাসা শ্রদ্ধার কারণে কুষ্টিয়ার মানুষকে নির্যাতনের শিকার হতে হয়েছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার সবার আগে কুষ্টিয়া জেলা উন্নয়নের জন্য গন মানুষের নেতা মাহবুব উল আলম হানিফ এমপির অক্লান্ত চেষ্টায় খুব শীঘ্রই ডিজিটাল জেলা হিসেবে স্বীকৃতি পেতে যাচ্ছে। প্রতিমন্ত্রী রাসেল বলেন, কুষ্টিয়া জেলার প্রতিটি উপজেলায় মিনি স্টেডিয়াম তৈরি করে দিব। যাতে করে কুষ্টিয়া জেলা ক্রীড়া সংস্থার কর্মকর্তাদের কোন আয়োজন করতে কষ্ট না হয়। বাংলাদেশের ইতিহাসে প্রথম বিশ্বকাপে কুষ্টিয়ার খেলোয়াড়ের নাম। যা কুষ্টিয়া জেলার জন্য গর্ব। তাই ভবিষ্যতে সকল খেলায় বিশ্বের দরবারে কুষ্টিয়ার খেলোয়াড় নির্বাচিত হবার জন্য আপনাদের সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। আপনাদের জন্য হানিফ সাহেব অনেক কিছুর আবেদন করেছেন, আমি বলেছি অবশ্যই আমার সাধ্যনুযায়ী সকল কাজ শেষ করে দিব। কুষ্টিয়ার জন্য স্কেটিং মাঠের জমি দেখা হয়েছে, খুব শীঘ্রই কাজ শুরু হবে।সর্বশেষ তিনি সকলের কাছে তার বাবা মরহুম আহসান উল্লাহ মাষ্টার ও নিজের জন্য দোয়া কামনা করেছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..