রবিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ০৮:১৯ পূর্বাহ্ন

দৌলতপুর থানা দালালমুক্ত : প্রশংসায় ভাসছেন ওসি নাসির

কে এম শাহীন রেজা, কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধি
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার ২৩ নভেম্বর, ২০২১
  • ৬৫

পুলিশ জনগনের বন্ধু ও জনগনের জানমালের হেফাজতের দায়িত্ব পুলিশের। কুষ্টিয়ার দৌলতপুর থানায় যোগদানের পর থেকেই পরিবর্তনের অঙ্গীকার নিয়ে থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নাসির উদ্দিন কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার খায়রুল আলমের দিক নির্দেশনায় সাধারন মানুষের নিরাপত্তার জন্য কাজ করার পাশাপাশি থানার দরজা সকল বিপদগ্রস্থ মানুষের জন্য উন্মক্ত রেখেছেন। থানা এলাকার মানুষের সমস্যা সমাধানে তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা গ্রহণ করে চলেছেন তিনি। (ওসি) নাসির উদ্দিন থানায় যোগদানের পর থেকেই পাল্টে গেছে থানার এলাকার চিত্র। নিজেকে ওসি হিসেবে নয়, জনগনের সেবক হিসেবে অতি সাধারন বেশে জনগনের পাশে থাকার চেষ্টা করছেন তিনি। শক্ত হাতে দমন করছেন থানার দালালির দৌরাত্ব। শুধু তাই নয়, দৌলতপুর থানা কুখ্যাত কুড়ানো রক্তাক্তের জনপদে এখন শান্তির সুবাতাস বইছে। থানায় সেবা নিতে আসা লোকজন টাকা ছাড়াই সাধারণ ডাইরি জিডি, অভিযোগ ও মামলা লেখা বা অন্তর্ভূক্ত করতে পারছেন।

থানা এলাকায় ছোট-বড় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটলে থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নাসির উদ্দিনের নেতৃত্বে থানা-পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হওয়ায় বড় ধরনের সংঘর্ষের হাত থেকে রক্ষা পাচ্ছে এলাকাবাসী। এসব কারণেই থানা এলাকার বাসিন্দা সর্বস্তরের মানুষের মুখে মুৃখে তার প্রসংশা। তিনি বর্তমানে সাধারন মানুষের কাছে আস্থার প্রতীক এবং অপরাধীর কাছে হয়ে উঠেছেন আতঙ্ক।

দৌলতপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নাসির উদ্দিন বলেন, কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার খায়রুল আলম স্যারের দিক নির্দেশনায় সাধারন মানুষের নিরাপত্তার জন্য কাজ করে চলেছি। থানা এলাকায় মাদক নির্মুলে প্রতিমুহুর্তে কাজ করার পাশাপাশি থানায় দালাল মুক্ত করেছি। এখানে দালালী করার কোনো সুযোগ নেই। সাধারন মানুষের পাশে এসে দাঁড়ানো ও জনবান্ধব পুলিশ হিসেবে কাজ করার জন্য পুলিশ বাহিনীতে যোগদান করা। যতদিন ডিপার্টমেন্টে থাকব, মানুষের জন্য কাজ করে যাব। পুলিশের ভাবমুর্তি রক্ষা করতে সবসময় কাজ করবো। এতে থানা এলাকার মানুষের সহযোগিতা চাই।

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..