রবিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ০৮:১১ পূর্বাহ্ন

শিক্ষার্থীদের উপর হামলার প্রতিবাদে বশেমুরবিপ্রবিতে মানববন্ধন

রিফাত ইসলাম, বশেমুরবিপ্রবি প্রতিনিধি
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার ২৩ নভেম্বর, ২০২১
  • ৪৪

গোপালগঞ্জের শেখ সায়েরা খাতুন মেডিকেল কলেজে ক্রিকেট খেলাকে কেন্দ্র করে মেডিকেল কলেজ শিক্ষার্থী কতৃক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের উপর সশস্ত্র হামলার প্রতিবাদে শিক্ষার্থীরা মানববন্ধন করেছে।

আজ মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ফটকের সামনে দুপুর ১টায় সাধারণ শিক্ষার্থীদের উপস্থিতিতে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে শিক্ষার্থীরা বলেন, গত ২১ নভেম্বর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররা মেডিকেল প্রাঙ্গণে ক্রিকেট খেলার সময় হঠাৎ মেডিকেলের কিছু শিক্ষক ও শিক্ষার্থী তাদের বাধা প্রদান করলে, তারা বের হয়ে যেতে শুরু করে।

এমন অবস্থায় মেডিকেল ছাত্র হলের প্রভোস্ট বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করলে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা তার প্রতিবাদ জানায়। এরপর বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের প্রতিবাদের মুখে মেডিকেল কলেজের শিক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের মারতে উদ্যত হয়। এসময় সশস্ত্র অবস্থায় থাকা মেডিকেল কলেজ শিক্ষার্থীরা এক পর্যায়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

এই ঘটনায় মেডিকেল কলেজ হল প্রভোস্টের স্পষ্ট ইন্ধন ছিল জানান তারা। শিক্ষার্থীরা আরও বলেন, শেখ সায়েরা খাতুন মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদের প্রতি ইভটিজিং এর অযৌক্তিক অভিযোগ করলেও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীরা মেডিকেল ছাত্রীদেরকে ইভটিজিংয়ের ঘটনা এক প্রকারের মিথ্যাচার। মেডিকেল ভেতরে বহিরাগত চলাচল ও প্রবেশ বন্ধ করতেই এ ঘটনা পূর্বপরিকল্পিতভাবে সাজানো হয়েছে শিক্ষার্থীরা জানান।

এছাড়াও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেখ সাহেরা খাতুন মেডিকেল কলেজ শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের উস্কানিমূলক পোস্টের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান শিক্ষার্থীরা। একইসাথে মেডিকেল কলেজের চিকিৎসকের ভুল চিকিৎসা ২ বছর ধরে কোমায় থাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের ২য় বর্ষের শিক্ষার্থী মরিয়ম সুলতানা মুন্নির এই ঘটনা সঠিক তদন্তসহ দ্রুততম সময়ে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণের বিষয়ে প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।

এদিকে সংঘর্ষের ঘটনায় ইটের আঘাতে সদর থানার ওসি, বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক ও সংবাদকর্মীসহ অন্তত অর্ধশত আহত হয়েছে। আহতদের গোপালগঞ্জ ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা প্রদান করা হয়নি। এমতাবস্থায় গুরুতর আহত ৩ জনকে খুলনা মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। আহত শিক্ষার্থীরা হলেন পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী ৪র্থ বর্ষের অজয় দেব নাথ এবং সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ২য় বর্ষের শিক্ষার্থী সায়েমসহ আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের ২য় বর্ষের তানভীরকে খুলনা পাঠানো হয়। গতকাল আহত তানভীরের দেহে অস্ত্রোপচার করা হয়েছে বলে জানা গেছে। বর্তমানে তিনি খুলনা মেডিকেল কলেজে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..