রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৩:২২ অপরাহ্ন

সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনই দেশকে রক্ষা করতে পারে

অর্থনীতি ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ২ জানুয়ারী, ২০২২

নিউজটি শেয়ার করুন

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম, পীর সাহেব চরমোনাই বলেছেন, একটি সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনই দেশকে ভয়াবহ পরিস্থিতি থেকে রক্ষা করতে পারে। তিনি বলেন, দেশে একটি সুষ্ঠু, নিরপে¶ ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন কিভাবে হবে, তা নিয়ে না ভেবে যেনতেন ভাবে নতুন নির্বাচন কমিশন গঠন করে কোন ভাল ফল আনবে না। তিনি বলেন, চলমান ইউপি নির্বাচনে নৈরাজ্য এবং দস্যুতা চলছে। সারাদেশের ইউপি নির্বাচনগুলোতে নৈরাজ্যজনক অবস্থাতে দেশে কোন নির্বাচন কমিশন আছে বলে মনে হয় না। ধাপেঁ ধাপেঁ আয়োজিত ইউপি নির্বাচনের প্রতিটি ধাপেঁই ১০%-এর বেশি ইউনিয়নে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় চেয়ারম্যান ও মেম্বার নির্বাচিত হয়েছেন। বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত প্রত্যেকটি জায়গায়ই সরকার দলীয় প্রভাবশালী মন্ত্রী এবং এমপিরা সরাসরি প্রভাব খাটিয়েছেন।

সরকারের একজন প্রভাবশালী মন্ত্রী তার নির্বাচনী এলাকা কুমিল্লার লাকসামে একটি ইউনিয়নেও নির্বাচন হতে দেয়নি। মনোহরগঞ্জ উপজেলায়ও তার লোকজন কাউকে মনোনয়নপত্র তুলতে দিচ্ছেন না। সারাদেশে এ জাতীয় বহু ঘটনা রয়েছে। তাই যে সব ইউপিতে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় চেয়ারম্যান ও মেম্বার নির্বাচিত হয়েছেন আমরা সে সব ইউনিয়নে আবারো নির্বাচনের দাবী জানাচ্ছি।

পীর সাহেব চরমোনাই বলেন, দেশের বিভিন্ন জায়গায় ইসলামী আন্দোলনের হাতপাখার প্রার্থীদের উপর বিভিন্নভাবে হুমকি, ধমকি ও জুলুম নির্যাতন করা হয়েছে। যে সব ইউপিতে ইসলামী আন্দোলনের প্রার্থীদের উপর হামলা ও নির্যাতন করা হয়েছে, বাড়ীঘর, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান জালিয়ে দেয়া হয়েছে আমরা সে সবের সুষ্ঠু বিচার দাবী করছি। দ্রুত সন্ত্রাসী এবং দস্যুদের গ্রেফতার করতে হবে।

আজ বিকেলে নারায়নগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর মনোনীত মেয়র প্রার্থী মুফতি মাসুম বিল্লাহ’র নির্বাচনী পথসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। এতে আরো বক্তব্য রাখেন হাতপাখার মেয়র প্রার্থী মুফতি মাসুম বিল্লাহ, মহানগর সভাপতি ও কাউন্সিলর প্রার্থী নূর হোসাইন, নারায়ণগঞ্জ জেলা আহ্বায়ক মাওলানা দ্বীন ইসলামসহ জেলা ও মহানগর নেতৃবৃন্দ।

তেজগাঁও থানার দাওয়াতী সভা অনুষ্ঠিত : ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ঢাকা মহানগর উত্তরের তেজগাঁও থানা শাখার উদ্যোগে দাওয়াতী সভা গতকাল সন্ধ্যায় কাওরান বাজারস্থ আশিয়ানা রেস্টুরেন্ট মিলনায়তনেঅনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন দলের কেন্দ্রীয় প্রচার ও দাওয়াহ বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ূম। বিশেষ অতিথি ছিলেন সংগঠনের ঢাকা মহানগর উত্তর সাংগঠনিক সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার মুরাদ হোসেন। তেজগাঁও থানা শাখা সভাপতি আলহাজ্ব আবুল কাশেমের সভাপতিত্বে এবং সেক্রেটারী মোহাম্মদ ইলিয়াস হোসাইনের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত দাওয়াতী সভায় থানা অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ূম বলেছেন, সুবর্ণ জয়ন্তী পালন করেছে দেশ। কিন্তু জনগণের মৌলিক অধিকার ও ভোটাধিকার দেশে নেই। মানুষ দ্রব্যমূল্যের কষাঘাতে জর্জরিত। আজও মানুষ স্বাধীনতা ও ন্যায় বিচার থেকে বঞ্চিত। রাষ্ট্রের প্রতিটি সেক্টর দুর্নীতিতে জর্জরিত। সন্ত্রাস ও মাদকে দেশ সয়লাব। চলমান ইউপি নির্বাচনে মানুষ ভোট দতে পারছে না। এমতাবস্থায় একটি দেশ চলতে পারে না। এর আশু সমাধান প্রয়োজন।

ইঞ্জিনিয়ার মুরাদ হোসেন বলেন, ইসলাম শান্তি ও কল্যাণের ধর্ম, মানবতার ধর্ম। ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ মানুষের কল্যাণ সাধনে কাজ করছে। সন্ত্রাস, দুর্নীতি ও মাদকমুক্ত উন্নত কল্যাণ রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠায় সকলকে একযুগে কাজ করতে হবে।

এ জাতীয় আরো খবর..

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত আজকের অর্থনীতি ২০১৯।

কারিগরি সহযোগিতায়:
x