শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪, ১০:০৪ পূর্বাহ্ন

করিমগঞ্জে রৌহাবাসী পেল প্রত্যাশিত কবরস্থানের জায়গা

অর্থনীতি ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ৭ মে, ২০২২

নিউজটি শেয়ার করুন

করিমগঞ্জ উপজেলার রৌহা গ্রামের সাধারণ মানুষজন মৃত্যুবরণ করলে কবর দেওয়ার মতো নিদ্দিষ্ট কোন জায়গা ছিল না। রৌহা গ্রামসহ আশপাশের এলাকায় কবরস্থানের জায়গায় অভাবে সাধারণ মানুষের কবর দেওয়া নিয়ে কঠিন পরিস্থিতিতে পড়তে হতো। কিন্তু সেই অবস্থা থেকে উত্তরণের জন্য রৌহা গ্রাম বাসীকে কবরস্থানের জন্য উপহার হিসেবে জায়গা বরাদ্দ দিয়েছেন শিল্পপতি ও সমাজ সেবক আলহাজ্ব মো. এরশাদ উদ্দিন।

জানা যায়, রৌহা ও আশপাশের গ্রামের দীর্ঘদিনের দাবী ছিল সবার জন্য উম্মুক্ত ও নিদ্দিষ্ট কবরস্থান। অনেক সাধারণ মানুষ মারা যাওয়ার পর মৃত ব্যাক্তির গোসল ও কাফন শেষে দাফন করার নিশ্চয়তা থাকত না। অনেকের ব্যাক্তিগত গোরস্থানে সাধারণ কাউকে দাফন করতে দিতনা। ওই মৃত ব্যাক্তির মরদেহ নিয়ে অনেকের দুয়ারে দুয়ারে ঘুরতে হতো। কেউ দাফনের সুযোগ দিত আবার কেউ দিতে মানা করত।

এলাবাসীর দীর্ঘদিনের দাবির কথা বিবেচনায় নেয়ামতপুরের ভয়রাতে প্রাথমিকভাবে দশ শতাংশ জায়গা কবরস্থানের জন্য বরাদ্দ দিয়েছেন দানবির এরশাদ উদ্দিন। আরো জায়গায় বরাদ্দ দিবেন বলে এলাকাবাসীসূত্রে জানা গেছে।
সমাজসেবক এরশাদ উদ্দিন জানান, এলাকাবাসীর সমস্যার কথা শুনে ইতিমধ্যে কবরস্থানের জন্য দশ শতাংশ জায়গায় মাটি ভরাট করে প্রস্তুত করা হয়েছে, কবরস্থানের জন্য আরো জায়গার ব্যবস্থা করা হবে ইনশাআল্লাহ। রৌহাসহ আশপাশের এলাকার মানুষজনকে যেন লাশ দাফনের সমস্যার সম্মুখীন হতে না হয় সে ধরণের সকল ব্যবস্থা করা হয়েছে।

এ জাতীয় আরো খবর..

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত আজকের অর্থনীতি ২০১৯।

কারিগরি সহযোগিতায়:
x